শুভেচ্ছা সবার জন্য। রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি, ঢাকা এর  বার্ষিক বনভোজন ২০১২ এর শেষ মুহুর্তের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। অপেক্ষা আর মাত্র কয়েক দিন !! আশা করছি সকলের অংশগ্রহনে রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি, ঢাকা এর বার্ষিক বনভোজন ২০১২ এর এই দিনটি স্মরনীয় হয়ে থাকবে। বনভোজনে অংশ নেয়া  রংপুর বিভাগের সাংবাদিকদের /অতিথিদের সময় কাটবে আনন্দে -কেরামত উল্লাহ বিপ্লব এর প্রস্তাবে সাড়া দিয়ে এই আনন্দযজ্ঞের সবটূকু আনন্দ তথা রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি, ঢাকা বার্ষিক বনভোজন ২০১২– উৎসর্গিত করা হয়েছে আমাদের প্রিয় সকল প্রবাসী সাংবাদিকদের জন্য; যারা দূরে থেকেও থাকেন আমাদের খুব কাছে।
বনভোজন সংক্রান্ত সকল তথ্য: রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি,ঢাকা এর এক সভা জাকারিয়া মুক্তার সভাপতিত্বে ৫জানু’১২ ডিআরইউতে অনুষ্ঠিত হয়।
আলোচ্যসূচি ছিলো- ১. পিকনিক ২.বিবিধ
সিদ্ধান্তসমূহঃ বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) এবং পিকনিক ১৩ জানুয়ারি’১২ তারিখের পরিবর্তে আগামি ৫ ফেব্রুয়ারি’১২ পদ্মা রিসোর্ট (মাওয়া রোড) এ অনুষ্ঠিত হবে । অতএব জানুয়ারি ২০ তারিখের মধ্যে অর্থ কমিটির কাছে পিকনিকের চাঁদা (পিকনিক এর চাঁদার হার- একজন ৩০০/- এবং পরিবার ৫০০/-)  দেয়ার জন্য অনুরোধ করা হয় ।

পিকনিকের চাঁদা গ্রহণকারীগণ হলেন-
-মো: জুয়েল ইসলাম,মোবাইল-০১৭১১১০০০৭২
– অমিয় ঘটক পুলক,মোবাইল-০১৭২৯০৭৭৫১৮
-হাবিবঁ,মোবাইল-০১৫৫৩৫০৭৭১২
ব্যবস্থাপনা কমিটি: আহবায়ক-মোকছুদের রহমান-০১৭১৩৩১০১০৩
বি: দ্র: উপরোক্ত বার্তাটি সকলকে অবহিত করার জন্য অনুরোধ করা হলো । – মো: জুয়েল ইসলাম, আহবায়ক-অর্থ কমিটি

কিছু গুরুত্ত্বপুর্ন তথ্য
উল্লেখ থাকে যে প্রাপ্ত চাঁদা’র মোট অংক এবং খাতওয়ারী খরচের পুর্ন হিসেব আমরা ব্লগে পোষ্ট এর মাধ্যমে জানাবো বনভোজনের পর স্বল্পতম সময়ের মধ্যেই।
বিভিন্ন মাধ্যমে জানিয়ে বা চাঁদা পরিশোধ করে এ পর্যন্ত মোট ৫৭ জন তাদের বনভোজনে যোগদান নিশ্চিত করেছেন। এই তালিকার ৫৭ জন পিকনিকে অবশ্যই যাবেন বলে ধরে নেওয়া হচ্ছে।
কেউ যদি যাওয়া বাতিল করতে চান তাহলেও অতিসত্বর জানাতে পারেন এই পোষ্টে।এই তালিকার সূত্র ধরেই সবার যাতায়াত এবং খাবারের ব্যবস্থা করা হবে। অতএব কেউ শেষ সময়ে বাতিল করতে চাইলে আয়োজনে বিঘ্ন ঘটার আশঙ্কা রয়েছে।
যাদের পক্ষে আগে চাঁদা দেওয়া সম্ভব হয়নি তারা পিকনিকের দিন গাড়িতে পৌঁছেই হাবিবঁ/জুয়েল ইসলাম/অমিয় ঘটক পুলক"র কাছে চাঁদা পরিশোধ করার জন্য অনুরোধ রইলো।

আরো কিছু কথা
রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি, ঢাকা  কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে সংস্লিষ্ট সবাই সর্বোত সহায়তা করছেন। বনভোজনের ব্যানার, গিফট আইটেম উপহার হিসেবে দেয়া হচ্ছে রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতি, ঢাকা কর্তৃপক্ষের পক্ষ হতে।
বনভোজনে আগত সকল সাংবাদিক/অতিথিকে সকালের নাশতা করাবেন সাংবাদিক হাবিব ।
বনভোজনস্থলে পৌছার পরেই জুয়েল ভাইয়ের সৌজন্যে আসবে শীতের পিঠা, খেজুরের রস।
বিশেষ আকর্ষন হিসেবে গরুর গাড়িতে ভ্রমনের সুযোগ রয়েছে  সাংবাদিক/অতিথিদের জন্য।

প্রয়োজনে যোগাযোগ করতে পারেন নিম্নোক্ত নাম্বারেঃ
জুয়েল ভাই  ( Mobile : 01711100072)
এই বনভোজনের উদোক্তা, মুল আয়োজক সহ জুয়েল ভাই। আমরা কয়েকজন তার পক্ষে চেষ্টা করছি যেন এই আয়োজন সর্বাঙ্গীন সুন্দর এবং সফল হয়। ধন্যবাদ সবাইকে। ভাল থাকুন –
{jcomments on}

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।